শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে দায়িত্বপ্রাপ্ত কর্মকর্তারা ইমিগ্রেশনের সময় সাবেক নৌপরিবহন মন্ত্রী শাজাহান খানের মেয়ে ঐশী খানের করুণা সনদ চেক করেন এবং সেখানে নেগেটিভ থাকলেও অনলাইনে সেটি পজিটিভ রিপোর্ট দেখায় যার ফলে বিমানবন্দর থেকে তাকে ফিরিয়ে দেওয়া হয় এবং এরপর এই একের পর এক সমালোচনা আলোচনা উঠতে থাকে তাকে নিয়ে বিশেষত্ব সরকারের একজন উচ্চপদস্থ সাবেক মন্ত্রী এবং একজন নেতার মেয়ে কিভাবে চলমান পরিস্থিতির মধ্যে এমন কাজ করে সেটা নিয়ে প্রশ্ন উঠেছে সর্বমহলে

পরিবারের দুই সদস্যের কোভিড-১৯ পরীক্ষার ভুল রিপোর্টের বিরুদ্ধে অভিযোগ জানিয়েছেন সাবেক নৌ-পরিবহন মন্ত্রী শাজাহান খান। আজ দুপুরে মহাখালী স্বাস্থ্য অধিদপ্তরে তিনি অভিযোগ জানান।

তিনি বলেন, দেশের বাইরে যাওয়ার জন্য ডিএনসিসি করোনা আইসোলেশন সেন্টারে ২৪ জুলাই করোনা পরীক্ষা করা হয়। ২৫ তারিখে অনলাইনে রিপোর্ট নেগেটিভ আসে। ২৬ তারিখে ইংল্যান্ডে যাওয়ার উদ্দেশ্যে বিমানবন্দরে গেলে সেখানে ইমিগ্রেশনে করোনা পজেটিভ বলে জানায়। এ ধরনের ভুল রিপোর্ট দেয়ার জন্য সুষ্ঠু তদন্ত করে দায়ী ব্যক্তিদের বিরুদ্ধে আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহণের অনুরোধ জানান তিনি।


শাজাহান খানের মেয়ে ঐশী খানের করোনা ভাইরাস রিপোর্ট জালিয়াতি নিয়ে ইতিমধ্যে সোশ্যাল মিডিয়া এবং গণমাধ্যমগুলোতে ব্যাপক আলোচনা তৈরি হয়েছে কিন্তু এব্যাপারে পাল্টা অভিযোগ জানাচ্ছে শাজাহান খানের মেয়ে ইতিমধ্যে তার মেয়ে স্বাস্থ্যের ডিজির কাছে অভিযোগ করেছেন এবং সেখানে স্পষ্ট বোঝা যাচ্ছে যে যে প্রতিষ্ঠান থেকে এই রিপোর্ট কিনে নিয়েছিলেন সেখান থেকে তাকে ভুল রিপোর্ট প্রদান করেছে

News Page Below Ad