পুরুষ পুলিশ কর্মকর্তা এবং নারী পুলিশ কর্মকর্তাদের মধ্যে বিবাহের সম্পর্ক এবং প্রেমের সম্পর্কের ইতি টানতে যাচ্ছে কেনিয়ার সরকার। দেশটিতে ডিফেন্সের এই সব কর্মকর্তাদের মধ্যে প্রেম বিয়ের সম্পর্ক নিয়ে এবার কঠোর হচ্ছে দেশটির সরকার। পুলিশ কর্মকর্তাদের মধ্যে প্রেম বা বিয়ে নি’ষিদ্ধ করার সিদ্ধান্ত নিয়েছে কেনিয়া স’রকার। কর্মকর্তাদের মধ্য উচ্চহারে অ’পরাধপ্রবণতা কমানোর উদ্দেশে এ পদক্ষেপ নেওয়া হয়েছে। শনিবার দেশটির স্ব’রা’ষ্ট্রমন্ত্রী ফ্রেড ম্যাটিয়াং পুলিশ কলেজের একটি অনুষ্ঠানে এ কথা জানান। তবে এ সিদ্ধান্ত কার্যকর হওয়ার আগে জাতীয় নিরাপত্তা কাউন্সিলের অনুমোদন লাগবে বলে জানিয়েছেন স্ব’রা’ষ্ট্রমন্ত্রী। খবর বিবিসির
তিনি ব্যাখ্যা দিয়ে বলেন, দেশের সা’মরিক বাহিনীতেও বিভিন্ন পদের কর্মকর্তাদের মধ্যে ইতোমধ্যে প্রেমের সম্পর্ক নি’ষিদ্ধ রয়েছে। এ হিসেবে দেখা গেছে, গত কয়েক মাসে পুলিশ কর্মকর্তাদের মধ্যে স্বামী বা স্ত্রীকে হ’’ত্যার ঘটনা বেড়ে গেছে। এছাড়া অ’ভিযোগ আসছে, নারী পুলিশ কর্মকর্তারা যৌ’ন নি’পীড়নের শি’কার হচ্ছেন। অবশ্য জেন্ডার রিলেশনস অফিস সেগুলো খতিয়ে দেখবে।



এ দিকে দেশটির এই সিদ্ধান্তকে স্বাগত জানিয়েছেন দেশটির সাধারন জনগনেরা। সেই সাথে তারা এই বিষয়টি বাস্তবায়ন করতে বলেছে দ্রুত। এ নিয়ে কেনিয়ার স্ব’রা’ষ্ট্রমন্ত্রী বলেন, সিদ্ধান্ত অনুমোদন পেলে একজন পুলিশ কর্মকর্তা তার অধীনের কারও সঙ্গে প্রেম বা বিয়ে করতে পারবেন না। দুই পুলিশ কর্মকর্তার মধ্যে প্রেমের সম্পর্ক হলে তাদের একজনকে চাকরি ছেড়ে দিতে হবে বলেও জানান তিনি।

News Page Below Ad