বাংলাদেশে এখন টক অব দ্যা টাউনে পরিনিত হয়েছেন দেশের অন্যতম বড় একটি কোম্পানির মালিক বসুন্ধরা গ্রুপের এমডি সায়েম সোবহান আনভীর। এ দিকে এই তার সাথে এখন আরেকটি নাম জুড়ে যাচ্ছে ওৎপ্রোতভাবে। আর তা হলো হালের জনপ্রিয় অভিনেত্রী পরিমনি।সায়েম সোবহান আনভীর কার্গো করে দুবাই গিয়েছেন। আনভীর দুবাই পৌঁছাবার এক দিন যেতে না যেতেই আনভীরের স্ত্রী সাবরিনাও দুবাই গেলো। খোঁজ নিয়ে জানা গিয়েছে ফারিয়া মাহবুব পিয়াসা নামের এক নারী আনভীরের স্ত্রী সাবরিনাকে জানান তার স্বামী আনভীর দুবাইতে নিজের প্রাইভেট বোটে বাংলা চলচ্চিত্রের নায়িকা পরীমনিকে নিয়ে একান্তে সময় কাটাচ্ছে। উল্লেখ্য: আনভীরের সাথে পরিমনির ঘনিষ্ঠতা সম্পর্কে তার স্ত্রী আগে থেকেই জানতো। তাছাড়া ফেসবুকে পরীমনি দুবাইতে একটি প্রাইভেট বোট এ নিজের কিছু ছবি আপলোড করেছেন যা দেখে আনভীরের স্ত্রীর সন্দেহ আরো ঘনীভূত হয়। স্বামীকে তাই নিজের নজরদারিতে রাখার প্রচেষ্টা হিসেবে সাবরিনা সোবহান দুবাই পাড়ি জমালেন।
সায়েম সোবহান আনভীর কার্গো করে দুবাই গিয়েছেন। আনভীর দুবাই পৌঁছাবার এক দিন যেতে না যেতেই আনভীরের স্ত্রী সাবরিনাও দুবাই গেলো। খোঁজ নিয়ে জানা গিয়েছে ফারিয়া মাহবুব পিয়াসা নামের এক নারী আনভীরের স্ত্রী সাবরিনাকে জানান তার স্বামী আনভীর দুবাইতে নিজের প্রাইভেট বোটে বাংলা চলচ্চিত্রের নায়িকা পরীমনিকে নিয়ে একান্তে সময় কাটাচ্ছে।


উল্লেখ্য: আনভীরের সাথে পরিমনির ঘনিষ্ঠতা সম্পর্কে তার স্ত্রী আগে থেকেই জানতো। তাছাড়া ফেসবুকে পরীমনি দুবাইতে একটি প্রাইভেট বোট এ নিজের কিছু ছবি আপলোড করেছেন যা দেখে আনভীরের স্ত্রীর সন্দেহ আরো ঘনীভূত হয়। স্বামীকে তাই নিজের নজরদারিতে রাখার প্রচেষ্টা হিসেবে সাবরিনা সোবহান দুবাই পাড়ি জমালেন।


তবে এই ঘটনার এখনো তেমন কোন ধরনের শক্তপোক্ত সত্যতা পাওয়া যায়নি। কিন্তু এই ঘটনাটি নিয়ে রয়ে গেছে অনেকটাই ধোয়াসা। যা হয়তো একটা সময়ে হবে পরিষ্কার।

News Page Below Ad